মিডিয়া কর্নার

আরজে নীরবকে নিয়ে যা বললেন লাবণ্য

পণ্য সরবরাহ না করে ৫৬ লাখ ৫৭ হাজার ৬৮৯ টাকা আত্মসাতের অভিযোগের মামলায় গ্রেপ্তার হয়ে কারাগারে আছেন আরজে নীরব। তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল থানায় মামলাটি করেছিলেন আব্দুল্লাহ খান শৈশব। কারণ নীরব ই-কমার্স সাইট কিউকমের হেড অব সেলস (কমিউনিকেশন অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন) অফিসার হিসেবে দায়িত্বে ছিলেন।

রোববার (১০ অক্টোবর) স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি রেকর্ডের আবেদন করে তাকে আদালতে হাজির করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল থানার উপপরিদর্শক রুহুল আমিন। আরজে নীরব দোষ স্বীকার না করায় তাকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।

এদিন নীরবকে নিয়ে একটি পোস্ট করেছেন তার স্ত্রী লাবণ্য। লিখেছেন, ‘দুনিয়ার সব সুখ একদিকে আর সব দুঃখ দিয়ে মোড়ানো যদি আপনি থাকেন, আমি আপনার দিকেই যাব। এগিয়ে যেতে হলে আমাদের ধৈর্য রাখতে হবে। আলাহ ভরসা।’

এর আগে, শনিবার (৯ অক্টোবার) মধ্যরাতে ফেসুবক প্রোফাইলে নীরবের সঙ্গে ছবি শেয়ার করে তিনি ক্যাপশনে লিখেছেন, ‘তোমাকে নিয়ে আমি গর্বিত, আরও বেশি হব। এই অন্ধকার কেটে যাবে ইনশাআল্লাহ। অন্য সবার থেকে আমি ভালো করে জানি, তুমি দোষী নও। তুমি সব সময় তোমার সাধ্যের বাইরেও মানুষকে সাহায্য করেছ। তুমি কখনো কাউকে আঘাত করার কথা ভাবতেও পারো না। কিন্তু আমি ভালো করে চিনছি, কে আমাদের বন্ধু আর কে শত্রু।’

দেশে সম্প্রতি একাধিক ই-কমার্স প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে প্রতারণা ও অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে। ইভ্যালি, ই-অরেঞ্জের প্রতারণা আর অফিস বন্ধের পর এক নোটিশে নিজেদের অফিস বন্ধ ঘোষণা করে কিউকম। তারা কাউকে নিকেতনের অফিসে যেতেও নিষেধ করে দেয়।

মতামত দিন